কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


হাঁসের সাথে এ কেমন শক্রতা!


 আমিনুল ইসলাম বাবুল, তাড়াইল | ১৬ মে ২০২০, শনিবার, ৬:৩৭ | তাড়াইল  


কিশোরগঞ্জের তাড়াইলে পানিতে বিষ মিশিয়ে একটি খামারের ২১৬টি হাঁস মেরে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে খামারি মো. এরশাদ মিয়ার প্রায় ৫০ হাজার টাকার ক্ষতি হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ মে) উপজেলা রাউতি ইউনিয়নের সুরঙ্গল গ্রামের পার্শ্ববর্তী খালের পানিতে এ ঘটনা ঘটেছে।

ক্ষতিগ্রস্থ খামার মালিক মো. এরশাদ মিয়া (৬৩) সুরঙ্গল গ্রামের মৃত শাহেদ আলীর ছেলে। এ ব্যাপারে তিনি আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য শুক্রবার (১৫ মে) তাড়াইল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

সূত্রে জানা যায়, তাড়াইল উপজেলার রাউতি ইউনিয়নের সুরঙ্গল গ্রামের মো. এরশাদ মিয়া এক হাজার হাঁসের একটি খামার দিয়ে জীবিকা নির্বাহ করে আসছেন।

প্রতিদিনের ন্যায় হাঁসগুলো দলবদ্ধ হয়ে তার বাড়ির পিছনে খালের পানিতে গিয়ে নামে। কিছু সংখ্যক হাঁস খালে নেমে পানি খেয়ে মাথা ঘুরিয়ে মারা যায় এবং পানিতেই ভেসে উঠে।

তাৎক্ষণিক স্থানীয় প্রাণিচিকিৎসক নিয়ে গিয়ে চিকিৎসা প্রদান করলে প্রায় ৮শ হাঁস প্রাণে বেঁচে গেলেও ২শ’ ১৬টি হাঁস মারা যায়। ‘কে বা কারা’ পানিতে বিষ প্রয়োগ করায় এই ঘটনাটি ঘটেছে।

হাঁসের খামার মালিক মো. এরশাদ মিয়া বলেন, আমি গরীব মানুষ। কে বা কারা পানির সাথে বিষ মিশিয়ে আমার এক হাজার হাঁস-ই মেরে ফেলতে চেয়েছিল। হাঁসের সাথে শক্রতা! এর বিচার চাই।

তাড়াইল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. মুজিবুর রহমান অভিযোগ পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, অভিযোগটি তদন্তাধীন রয়েছে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর