কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


ইটনায় যাত্রীবাহী ট্রলার ডুবে মা-সন্তানসহ নিহত ৩


 স্টাফ রিপোর্টার | ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শনিবার, ৭:৪১ | ইটনা  


কিশোরগঞ্জের ইটনায় অতিরিক্ত মালামাল বোঝাইয়ের কারণে যাত্রীবাহী ট্রলার ডুবে মা ও শিশু সন্তানসহ মোট তিনজন নিহত হয়েছে। এছাড়া আরো এক নারী আহত হয়েছে। শনিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে উপজেলার বাদলা ইউনিয়নের বর্শিকুড়া বাজারঘাটে মর্মান্তিক এই নৌদুর্ঘটনাটি ঘটে।

নিহতরা হলো, উপজেলার শিমলা উত্তরপাড়া গ্রামের মো. বাবুল মিয়ার স্ত্রী মোছা. ইয়াসমিন আক্তার (৩০), তার শিশুপুত্র মো. ইয়াসিন মিয়া (৭) ও গন্ধবপুর পূর্বপাড়ার মো. জব্বার হোসেনের স্ত্রী মোছা. আছিয়া খাতুন (৬০)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, পার্শ্ববর্তী তাড়াইল থেকে ২৫/৩০ জন যাত্রী ও বাঁশসহ অন্যান্য মালামাল বোঝাই করে একটি ট্রলার ইটনা উপজেলার রায়টুটি ইউনিয়নের ধারা গ্রামে যাচ্ছিল। পথে বর্শিকুড়া বাজার ঘাটে যাত্রী ওঠা-নামার জন্য নোঙর করার সময় ট্রলারটি যাত্রী ও মালামালসহ ঘাটেই ডুবে যায়। এ সময় ট্রলারের ছাদে থাকা যাত্রীরা সাঁতরে তীরে উঠতে পারলেও ভেতরের যাত্রীরা আটকা পড়েন।

স্থানীয়রা ট্রলারের ছাদ কেটে ভেতর থেকে সেখানে আটকে পড়া যাত্রীদের উদ্ধার করেন। যাত্রীদের মধ্যে ইয়াসমিন আক্তার ও তার শিশুপুত্র মো. ইয়াসিন মিয়া ঘটনাস্থলেই মারা যায়। এছাড়া মোছা. আছিয়া খাতুনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সময় পথে তার মৃত্যু হয়।

অন্যদিকে এ ঘটনায় আহত জায়েদা খাতুন (৩০) নামে এক নারীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। জায়েদা করিমগঞ্জ উপজেলার গুজাদিয়া ইউনিয়নের করনশী গ্রামের মো. বদরুল আলমের স্ত্রী।

ইটনা থানার ওসি মোহাম্মদ মুর্শেদ জামান বিপিএম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, অতিরিক্ত বোঝাইয়ের কারণে ঘাটে নোঙর করার সময় ট্রলারটি ডুবে গেলে এই হতাহতের ঘটনা ঘটে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর