কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


ভৈরবে জমি বিরোধে প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে যুবক নিহত


 আফসার হোসেন তূর্জা, ভৈরব | ১৪ জুন ২০২১, সোমবার, ৭:০৭ | ভৈরব 



কিশোরগঞ্জের ভৈরবে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মোলায়েম হোসেন বাবু (২১) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। সোমবার (১৪ জুন) সকাল ৮টার দিকে উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের মানিকদী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মোলায়েম হোসেন বাবু মানিকদী গ্রামের কালা মিয়ার ছেলে।

নিহতের পিতা কালা মিয়া ও এলাকাবাসী জানান, কালা মিয়া ও মজনু মিয়া একই বংশের। সম্পর্কে তারা চাচাতো ও জেঠাতো ভাই। তাদের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত জায়গা জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল।

বিরোধ নিস্পত্তি করতে এলাকায় ৮ থেকে ১০ বার সালিশী বৈঠকও হয়েছে। কিন্তু কালা মিয়া পক্ষ সালিশ মানলেও মজনু মিয়া তা মানতে চান না।

সর্বশেষ গত দু দিন আগে আবারও সালিশ বৈঠক বসেও তা নিষ্পত্তি করা যায়নি।

এ পরিস্থিতিতে সোমবার (১৪ জুন) সকালে মজনু মিয়ার লোকজন কালা মিয়ার বাড়িতে অতর্কিত হামলা চালায়। হামলাকারীরা কালা মিয়ার পক্ষের লোকজনের ২০/২৫টি বাড়িঘর ভাঙচুর করে লুটপাট চালায়।

এ সময় মোলায়েম হোসেন বাবু ঘর থেকে বের হলে হামলাকারীরা বাবুর বুকে ছুরিকাঘাত করে। এতে সে গুরুতর আহত হলে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে বাজিতপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এলাকাবাসী জানিয়েছেন, হামলায় আরো বেশ কয়েকজন গুরুতর আহত হয়েছে। তারা বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ব্যাপারে গজারিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান গোলাম সারোয়ার বলেন, তাদের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত জায়গা জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। এ বিষয়ে আমরা বেশ কয়েকবার সালিশী বৈঠক করেছি। কিন্তু কোন সুরাহা করা যায়নি।

গত পরশুদিনও সালিশ হয়েছে। মজনু পক্ষ রায় মানতে নারাজ বলে আমরা তখনই ধারণা করেছিলাম। আর এ সব বিষয়ে আজ (সোমবার, ১৪ জুন) সকালে মজনু মিয়ার পক্ষের লোকজন কালা মিয়ার ছেলে বাবুকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে হত্যা করে।

ভৈরব থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. শাহিন জানান, জায়গা জমি নিয়ে তারা চাচাতো জেঠাতো ভাইয়ের মধ্যে ঝামেলা চলছিল। আজ (সোমবার, ১৪ জুন) সকাল ৮টার দিকে তাদের মধ্যে মারামারি হয়। মারামারিতে এক পক্ষের বাবু আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় বলে জানতে পারি এবং সাথে সাথে ঘটনাস্থলে পুলিশ প্রেরণ করি।

বাবুর হত্যাকাণ্ডে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক আছে।


[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর