কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


মিঠামইনে ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা


 বিজয় কর রতন, মিঠামইন | ৩০ জুন ২০২০, মঙ্গলবার, ২:০১ | মিঠামইন 


কিশোরগঞ্জের হাওর উপজেলা মিঠামইনে ৬ষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী (১১) কে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনা ঘটেছে। উপজেলার ঘাগড়া ইউনিয়নের ভরা গ্রামের ফকির হাটিতে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

এই ঘটনায় ছাত্রীর বড় ভাই বাদী হয়ে প্রতিবেশী দুই সন্তানের জনক লিয়াকত আলী (২৬) কে আসামি করে সোমবার (২৯ জুন) মিঠামইন থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

ছাত্রী ধর্ষণ চেষ্টায় অভিযুক্ত লিয়াকত আলী ভরা ফকির হাটির করম আলীর ছেলে।

অভিযোগ ও পরিবার সূত্রে জানা গেছে, স্থানীয় বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী সম্পর্কে অভিযুক্ত লিয়াকত আলীর স্ত্রী দেলোয়ারার চাচাতো বোন। গত ২৬ জুন সকালে বৃষ্টির মধ্যে লিয়াকত আলী স্ত্রীর অনুপস্থিতির সুযোগে ফুসলিয়ে মেয়েটিকে তার ঘরে ডেকে নিয়ে যায়।

সেখানে মেয়েটিকে সে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এসময় মেয়েটি ডাক-চিৎকার শুরু করলে লিয়াকত পালিয়ে যায়। ওই ছাত্রী বিষয়টি তার মা-বাবাকে জানায়।

ঘটনাটি জানাজানি হলে প্রভাবশালী লিয়াকত ও তার লোকজন মেয়ের পরিবারকে নানাভাবে হুমকি দেয় এবং মামলা করলে ভয়াবহ পরিণতি হবে বলে হুংকার দেয়।

এ পরিস্থিতিতে ঢাকায় থাকা মেয়েটির বড় ভাই বাড়ি এসে সোমবার (২৯ জুন) মিঠামইন থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগের পর অভিযুক্ত লিয়াকতের পক্ষ থেকে ভিকটিম পরিবারকে নানাভাবে হুমকি দিচ্ছে বলে অভিযোগকারী মেয়েটির বড় ভাই জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে মিঠামইন থানার ওসি মো. জাকির রব্বানী বলেন, এ ব্যাপারে অভিযোগ পেয়েছি। অভিযুক্তকে ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ ব্যাপারে যথাযথ আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর