কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


ভৈরবের ভণ্ডপীর আবুল বাসার কারাগারে


 সোহেল সাশ্রু, ভৈরব | ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, রবিবার, ৯:৩৯ | ভৈরব 


পবিত্র হজ্ব নিয়ে কটূক্তি ও ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের প্রতিবাদে ভৈরবের গুলে মদিনা দরবারের পীর আবুল বাসারকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। রোববার (১৬ ফেব্রুয়ারি) সকালে কিশোরগঞ্জ চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মদ হাবীব উল্লাহর কাছে জামিন প্রার্থনা করলে বিচারক নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

পরে আবুল বাসারকে কিশোরগঞ্জ জেলা কারাগারে পাঠানো হয়। এই খবর পেয়ে ভৈরবের ইমাম-ওলামা পরিষদসহ হাজার হাজার তৌহিদী জনতার মুখে হাসি ফুটেছে।

জানা গেছে, সম্প্রতি হবিগঞ্জে এক ওয়াজ মাহফিলে ভৈরবের গুলে মদিনা দরবারের পীর আবুল বাসার পবিত্র ওমরা হজ্ব নিয়ে কটূক্তিসহ ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়।

এ নিয়ে সাধারণ মানুষের মাঝে তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। এই ঘটনায় গুলে মদিনা দরবারের পীর আবুল বাসারকে একমাত্র আসামি করে আইনজীবী আমিনুল ইসলাম মামুন গত ২ জানুয়ারি ভৈরব থানায় তথ্য ও প্রযুক্তি আইনে মামলা দায়ের করেন।

এতে একাত্মতা ঘোষণা করে ও ভণ্ডপীর আবুল বাসারকে গ্রেপ্তারের দাবিতে ভৈরবের ইমাম-ওলামা পরিষদ বিক্ষোভ সমাবেশের ডাক দেয়।

এ ডাকে সাড়া দিয়ে হাজার হাজার তৌহিদী জনতা শহরের ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাশে দু’দফায় বিক্ষোভ সমাবেশ করেন।

সর্বশেষ গত ২ ফেব্রুয়ারি বিক্ষোভ সমাবেশে করে সংগঠনটি। সমাবশে বক্তারা, গুলে মদিনা দরবারের ভণ্ডপীর আবুল বাসারকে অবিলম্বে গ্রেপ্তার করে তার সকল আস্তানা অর্থাৎ খানকা বন্ধ করে সিলগালা করে দেয়ার দাবি জানান।

তা- না হলে আরও কঠোর আন্দোলনের ডাক দেবেন বলে হুশিঁয়ারী দেন বক্তারা।

এর দু’সপ্তাহ পর কিশোরগঞ্জ চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মদ হাবীব উল্লাহর কাছে জামিন প্রার্থনা করেন আবুল বাসার। বিচারক জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এর আগে ভণ্ডপীর আবুল বাসার উচ্চ আদালতের মাধ্যমে দু’সপ্তাহের জন্য জামিনে ছিলেন।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর