কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


জীবন দিয়ে বাল্যবিয়ে ঠেকাল স্কুল ছাত্রী, মেয়ের মৃত্যুর খবরে মায়ের মৃত্যু


 কিশোরগঞ্জ নিউজ ডেস্ক | ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ৮:০১ | সারাদেশ 


পিরোজপুর জেলার ইন্দুরকানীতে বাল্য বিয়েতে দিতে চাওয়ায় রেশমা আক্তার (১২) নামে চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। মেয়ের আত্মহত্যার খবর শুনে হার্ট অ্যাটাক করে মারা গেছেন মা মিনারা বেগম। বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) রাতে ইন্দুরকানী উপজেলার উত্তর বালিপাড়া এলাকায় হৃদয় বিদারক এই ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, ইন্দুরকানী উপজেলার উত্তর বালিপাড়া গ্রামের জব্বার বেপারীর  মেয়ে চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী রেশমা আক্তার। সে উপজেলার উত্তর বালিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী।

মাস খানেক আগে একই গ্রামের মোতালেব চৌকিদারের ছেলে শফিকুল ইসলামের সাথে তার বিয়ে ঠিক হয়। রেশমা এ বিয়েতে রাজি না হওয়ায় পরিবারের সঙ্গে প্রায়ই ঝগড়া হতো।

বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) বিকালে রেশমাকে মা মিনারা বেগম মাঠ থেকে হাঁস আনতে বললেও রেশমা মায়ের কথা না শুনে ঘরে বসে থাকে। এ নিয়ে মায়ের সঙ্গে  রেশমার কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে মা রাগ করে রেশমাকে মারধর করে। পরে রেশমা ক্ষোভে ঘরে থাকা কীটনাশক পান করে।

স্বজনেরা টের পেয়ে তাকে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত ১১টায় রেশমা মারা যায়। রেশমার মৃত্যুর খবর শুনেই তার মা মিনারা বেগমের হার্ট অ্যাটাক হয়। রাতেই তাকে হাসপাতালে ভর্তি করার পর শুক্রবার (২৭ সেপ্টেম্বর) সকালে তিনি মারা যান।

মা ও মেয়ের এমন মর্মান্তিক মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। স্বজনদের কান্না আর আহাজারিতে ভারি হয়ে ওঠে এলাকার পরিবেশ।

ইন্দুরকানী থানার এসআই হেমায়েত উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, রেশমার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর