কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


মঙ্গলবার কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ, ব্যাপক নিরাপত্তা


 স্টাফ রিপোর্টার | ১৭ জুন ২০১৯, সোমবার, ৮:৫২ | বিশেষ সংবাদ 


তৃতীয় ধাপে স্থগিত হওয়া কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ মঙ্গলবার (১৮ জুন) অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত টানা ভোটগ্রহণ চলবে। ভোটগ্রহণ অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ করতে নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। র‌্যাব, বিজিবি ও পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রায় দেড় হাজার সদস্য নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করবেন।

এ উপলক্ষে সোমবার (১৭ জুন) কটিয়াদী সরকারি কলেজ মাঠে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ব্রিফিং প্যারেড অনুষ্ঠিত হয়েছে। ব্রিফিং প্যারেডে প্রধান অতিথি হিসেবে পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম (বার) আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের সর্বোচ্চ পেশাদারিত্বের সাথে দায়িত্ব পালনের নির্দেশনা দিয়েছেন।

পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম (বার) জানান, নির্বাচনে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণ রাখতে রাখতে পুলিশ প্রশাসন বদ্ধপরিকর। প্রত্যেক ভোট কেন্দ্রে পর্যাপ্ত সংখ্যক পুলিশের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সহস্রাধিক পুলিশ সদস্য ছাড়াও র‌্যাব ও বিজিবি সদস্যরা নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করবেন। ভোটাররা স্বাধীনভাবে ব্যালটের মাধ্যমে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবেন, সেখানে কোন বাধা-বিঘ্ন থাকবে না।

রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম জানান, অবাধ, সুষ্ঠু, শান্তিপূর্ণ ও নিরপেক্ষ পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এজন্যে ইতোমধ্যে যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। এরই মধ্যে ব্যালট বাক্স, ব্যালট পেপারসহ নির্বাচনী সরঞ্জাম কেন্দ্রে কেন্দ্রে প্রেরণ করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মোট কেন্দ্র সংখ্যা ৮৯টি। ৮৯টি কেন্দ্রের মোট ৫৬৪টি কক্ষে ভোটগ্রহণ করা হবে। এ উপজেলায় মোট ভোটার ২ লাখ ৩০ হাজার ৪২২ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১ লাখ ১৩ হাজার ৬১৮ জন এবং মহিলা ভোটার ১ লাখ ১৬ হাজার ৮২২ জন। নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৬ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তৃতীয় ধাপে গত ২৪ মার্চ কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু ২৪ মার্চ সকাল ৮টায় ভোট শুরু হওয়ার পর বিভিন্ন কেন্দ্র থেকে আগেই ব্যালটে সীল মেরে বাক্স ভর্তি করে রাখার খবর ও অভিযোগ ওঠায় দেড় ঘন্টার মধ্যে উপজেলার ৮৯টি কেন্দ্রের সবকটিতেই ভোটগ্রহণ স্থগিত ঘোষণা করেন রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম।

এছাড়া দায়িত্ব পালনে অবহেলার অভিযোগে দুই পুলিশ কর্মকর্তা কিশোরগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) শফিকুল ইসলাম ও কটিয়াদী থানার ওসি মোহাম্মদ সামসুদ্দীনকে প্রত্যাহার এবং পরবর্তিতে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

গত ২২ মে নির্বাচন কমিশন থেকে স্থগিত হওয়া কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তারিখ ১৮ জুন নির্ধারণ করে রিটার্নিং অফিসারের কাছে নির্দেশনা পাঠানো হয়। এরপর থেকে প্রচার-প্রচারণায় সরব হয়ে ওঠেন প্রার্থীরা। জমজমাট প্রচারণা শেষে ভোটযুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছেন তারা। ভোটারেরাও এবার উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিতে মুখিয়ে রয়েছেন বলে অনেকেই মনে করছেন।

কটিয়াদী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ছয় চেয়ারম্যান প্রার্থী হলেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী কেন্দ্রীয় যুব মহিলা লীগের সহ তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক তানিয়া সুলতানা হ্যাপী (নৌকা), আওয়ামী লীগের তিন বিদ্রোহী প্রার্থী সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান লায়ন আলী আকবর (দোয়াত-কলম), ডা. মোহাম্মদ মুশতাকুর রহমান (ঘোড়া) ও আলতাফ উদ্দীন (মোটর সাইকেল), স্বতন্ত্র প্রার্থী আনোয়ার আনার (আনারস) এবং জাকের পার্টির প্রার্থী শহীদুজ্জামান স্বপন (গোলাপ ফুল)।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে ছয় প্রার্থী হলেন, রেজাউল করিম শিকদার (তালা), মো. বকুল মিঞা (টিউবওয়েল), সদরুল হক (বৈদ্যুতিক বাল্ব), মজিবুর রহমান (টিয়া পাখি), মো. কামরুজ্জামান (মাইক) এবং মো. আবুল কালাম (উড়োজাহাজ)।

এছাড়া মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিন প্রার্থী হলেন, সাথী বেগম (কলস), রোকসানা (ফুটবল) এবং মোসা. নওরীন সুলতানা (হাঁস)।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর